নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত | নগদ কোড, অফার, সুবিধা

নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত

আপনি যদি নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চান, তাহলে এই আর্টিকেলটি পড়ে আপনি নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত সকল তথ্য জানতে পারবেন। 

নগদ হচ্ছে বাংলাদেশ সরকারের ডাক বিভাগের ডিজিটাল মোবাইল ব্যাংকিং সেবা। যার মাধ্যমে খুব সহজেই টাকা লেনদেন করা যায়। 

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং মুলত বাংলাদেশ সরকারের একটি ডিজিটাল আর্থিক সেবা। যা আনুষ্ঠানিক ভাবে প্রতিষ্ঠিত হয় ২০১৮ সালের ১১ নভেম্বর। এটি থার্ড ওয়েভ টেকনোলজি লিমিটেড দ্বারা পরিচালিত একটি মোবাইল ব্যাংকিং পরিষেবা। 

নগদ তাদের পরিষেবা গুলোতে সার্ভিস চার্জ অনেক কম রাখায় বর্তমানে এর জনপ্রিয়তা ব্যাপক। তাই এই আর্টিকেলে আমরা নগদ মোবাইল ব্যাংকিং অর্থাৎ নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত সকল তথ্য (যেমনঃ নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম, দেখার নিয়ম, নগদ কোড, নগদের সুবিধা, নগদ অফার, নগদ হেল্পলাইন ইত্যাদি) নিয়ে আলোচনা করেছি। 

নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত | নগদ কোড, অফার, সুবিধা

আরো পড়ুনঃ নগদ একাউন্ট ব্যালেন্স দেখার নিয়ম

নগদ ইসলামিক একাউন্ট

বাংলাদেশে ইসলামি শরিয়াহ ভিত্তিক মোবাইল ব্যাংকিং সেবার কথা বিবেচনায় রেখেই নগদ ইসলামিক একাউন্ট চালু করা হয়েছে। নগদ ইসলামিক একাউন্ট এর রঙ সাধারণত সবুজ হয়ে থাকে।

ইসলামি শরিয়তের নিয়মকানুন অনুযায়ী নগদ ইসলামিক অ্যাপের কার্যক্রম। নগদ ইসলামিক একাউন্ট দিচ্ছে সুদ বিহীন ইসলামিক অর্থব্যবস্থা। সম্পুর্ন সুদ বিহীন ভাবে এখানে আপনি আপনার টাকা সঞ্চয় করতে পারবেন। এছাড়াও ডিজিটাল পদ্ধতিতে আপনার যাকাত ও বিভিন্ন প্রকার দান প্রদান করতে পারবেন।  এছাড়া খুব সহজেই পবিত্র হজ ও ওমরাহর যাতায়াতসহ অন্যান্য খরচ এই অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে পরিশোধ করতে পারবেন। 

নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম 

নগদের সকল সুবিধা ভোগ করার জন্য প্রথমে আপনার একটি নগদ একাউন্ট থাকতে। নগদ একাউন্ট খোলা মুলত অনেক সহজ। নগদ উদ্যোক্তা পয়েন্ট বা এজেন্টের কাছে গিয়ে নগদ একাউন্ট খোলা ছাড়াও আপনি পাশাপাশি আপনি আপনার মোবাইলের মাধ্যমেও নগদ মোবাইল ব্যাংকিং একাউন্ট খুলতে পারবেন। 

নগদ একাউন্ট মুলত আপনি তিনটি সহজ উপায়ে খুলতে পারবেন। নগদ অ্যাপের মাধ্যমে, ইউএসএসডি কোডের মাধ্যমে এবং এজেন্টের মাধ্যমে। 

নগদ একাউন্ট খোলার জন্য বিশেষ যে জিনিসগুলো প্রয়োজন হবে সেগুলো হচ্ছে একটি সিম, আপনার পাসপোর্ট সাইজের দুই কপি ছবি (এজেন্টের কাছে খুললে) এবং ন্যাশনাল আইডি কার্ড (অ্যাপ দিয়ে খুললে)। আপনি যদি নগদ একাউন্ট খুলতে চান, তাহলে নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি নিয়ে প্রকাশিত আমাদের নিচের আর্টিকেলটি দেখুন। 

নগদ একাউন্ট দেখার নিয়ম 

নগদ একাউন্ট খোলার পর মুলত নগদ একাউন্ট দেখার প্রয়োজন হয়। নগদে দুইটি উপায়ে নগদ একাউন্ট দেখার ব্যবস্থা রয়েছে। একটি হচ্ছে কোড ডায়াল করে এবং অন্যটি হচ্ছে নগদ অ্যাপের মাধ্যমে। 

কোড ডায়াল করে নগদ একাউন্ট দেখার নিয়ম 

কোড ডায়াল করে নগদ একাউন্ট দেখার জন্য প্রথমে আপনাকে ডায়াল করতে হবে *167#। কোডটি ডায়াল করলে আপনি নিচের মতো নগদ একাউন্টে এর সমস্ত পরিষেবা দেখতে পারবেন। 

  1. Cash Out
  2. Send Money 
  3. Mobile Recharge 
  4. Payment
  5. Bill Pay
  6. EMI Payment 
  7. My Nagad 
  8. Pin Reset


1. Cash Out: নগদ কোড ডায়াল করলে আপনি প্রথমে যে অপশনটি দেখতে পাবেন সেটি হচ্ছে ক্যাশ আউট। এই অপশনটির মাধ্যমে আপনার নগদ একাউন্ট থেকে যেকোনো এজেন্ট নাম্বারে ক্যাশ আউট করে টাকা বের করতে পারবেন। 

2. Send Money: দুই নাম্বারে যে অপশনটি পাবেন সেটি হচ্ছে সেন্ড মানি। এই অপশনটির মাধ্যমে আপনার নগদ একাউন্ট হতে অন্যের নগদ একাউন্টে টাকা পাঠাতে পারবেন। 

3. Mobile Recharge: এই অপশনটি মুলত মোবাইলে টাকা রিচার্জ করার জন্য। অর্থাৎ আপনি যদি নগদ একাউন্ট থেকে আপনার মোবাইলে টাকা রিচার্জ করতে চান, তাহলে এই অপশনটির মাধ্যমে সেটি করতে পারবেন। 

4. Payment: এই অপশনটি মুলত মার্চেন্ট পেমেন্ট এর জন্য। 

5. Bill Pay: বিল পে নামক পঞ্চম অপশনটির মাধ্যমে বাড়িতে বসেই বিভিন্ন বিল পরিশোধ করতে পারবেন। যেমনঃ বিদ্যুৎ বিল, ইন্টারনেট বিল, গ্যাস বিল, পানি বিল, টিভি ও টেলিফোন ইত্যাদি বিল পরিশোধ করতে পারবেন। 

6. EMI Payment: এই অপশনটির মাধ্যমে দেশীয় বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি সংস্থায় টাকা পেমেন্ট করতে পারবেন। 

7. My Nagad: মাই নগদ অপশনটির মাধ্যমে নগদ একাউন্টের ব্যালেন্সের পরিমাণ চেক, লেনদেনের হিস্ট্রি চেক করতে পারবেন। 

8. Pin Reset: পিন রিসেট অপশনটি মুলত নগদ একাউন্টের পিন রিসেট করার জন্য। অর্থাৎ আপনি যদি আপনার নগদ একাউন্টের পিন চেঞ্জ করতে চান তাহলে এই অপশন থেকে করতে পারবেন। অথবা যদি আপনার নগদ একাউন্টের পিন ভুলে যান তাহলে এই অপশনের মাধ্যমে পিন ফরগেট বা রিসেট দিতে পারবেন। 

অ্যাপের মাধ্যমে নগদ একাউন্ট দেখার নিয়ম 

অ্যাপ দিয়ে আরো সহজে নগদ একাউন্ট দেখতে পারবেন। আর অ্যাপ দিয়ে নগদ একাউন্ট দেখার তেমন কোনো নিয়ম নেই। আপনি জাস্ট নগদ একাউন্টে পিন দিয়ে প্রবেশ করলেই আপনার নগদ একাউন্টের সমস্ত পরিষেবা দেখতে পারবেন। 

নগদ একাউন্ট টাকা দেখার নিয়ম

নগদ একাউন্ট দেখার নিয়মের মতো নগদ একাউন্ট টাকা দেখার নিয়মও দুইটি। কোড ডায়াল করে এবং অ্যাপের মাধ্যমে। 

  • কোড ডায়াল করে টাকা দেখার জন্য প্রথমে ডায়াল করুন *167#।
  • এরপর 7 প্রেস করে Send এ ক্লিক করে My Nagad এ প্রবেশ করুন 
  • এরপর 1 প্রেস করে Send এ ক্লিক করুন 
  • এরপর আপনার পিন দিয়ে Send এ ক্লিক করবেন তাহলে আপনার নগদ একাউন্টের ব্যালেন্স বা টাকা দেখতে পারবেন। 

অ্যাপের মাধ্যমে টাকা দেখার জন্য প্রথমে নগদ অ্যাপে প্রবেশ করবেন। এরপর ব্যালেন্স জানতে ট্যাপ করুন (ভাষা ইংরেজি হলে Tap for Balance) লেখায় ক্লিক করবেন। তাহলে আপনার নগদ একাউন্টের টাকার পরিমাণ দেখতে পারবেন। 

নগদ উপবৃত্তির টাকা দেখার নিয়ম

বর্তমানে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের উপবৃত্তি নগদ মোবাইল ব্যাংকিং এ দেওয়া হয়। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের উপবৃত্তি ছাড়াও এখন সরকারি কিছু অনুদানও নগদ মোবাইল ব্যাংকিং একাউন্টে দেওয়া হয়। নগদে উপবৃত্তির টাকা চেক করার জন্য আপনার মেইন ব্যালেন্স চেক করুন। কেননা আপনার নগদ একাউন্টে উপবৃত্তির টাকা আসলে তা মেইন ব্যালেন্সের সাথেই যোগ হবে। 

নগদ অ্যাপ (Nagad App)

নগদ অ্যাপের সকল সুবিধা আপনি নগদ অ্যাপের সাহায্যে খুব সহজে নিতে পারবেন। নগদ app আপনার ফোনে ইন্সটল করতে এই লিংকে ক্লিক করুন। 

নগদ কোড। নগদ একাউন্ট দেখার কোড

অ্যাপ ছাড়াও আপনি নগদ মোবাইল ব্যাংকিং কোডের মাধ্যমে নগদ একাউন্ট দেখতে পারবেন। নগদ একাউন্ট দেখার কোড হচ্ছে *167#। এই কোডটি ডায়াল করে নগদ একাউন্টের সকল সেবা দেখতে পারবেন। 

নগদ একাউন্টের ক্যাশ আউট চার্জ

নগদই একমাত্র মোবাইল ব্যাংকিং সেবা যা দিচ্ছে সর্বনিম্ন চার্জে ক্যাশ আউট করার সুবিধা। নগদ এর বর্তমান ক্যাশ আউট চার্জ 9 টাকা 99 পয়সা যা বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত সর্বনিম্ন। নগদ পার্সোনাল নাম্বার থেকে প্রতি ১০০০ টাকা ক্যাশ আউটে খরচ-

  • নগদ অ্যাপে ক্যাশ আউট চার্জ প্রতি ১ হাজারে ভ্যাট সহ ১১.৪৯ টাকা।
  • নগদ  USSD CODE (*167#) ডায়াল করে প্রতি হাজারে ক্যাশ আউট চার্জ ভ্যাট সহ ১৪.৯৫ টাকা।
  • আর এক নগদ একাউন্ট থেকে অন্য নগদ একাউন্টে সেন্ড মানি সম্পুর্ন ফ্রি।  

নগদ একাউন্ট খোলার অফার

নতুন নগদ একাউন্ট খুললেই পাচ্ছেন ২০ টাকা বোনাস! আর সেই ২০ টাকা সেল্ফ রিচার্জ বা আপনার সেই নগদ একাউন্টের নাম্বারে রিচার্জ করলেই পাবেন ২০ টাকা ক্যাশব্যাক। ক্যাশব্যাকের এই অফারটি আপনি প্রতি মাসে দুইবার নিতে পারবেন। এবং এই অফারটি একটানা ছয় মাস নিতে পারবেন। 

নগদ একাউন্টের সুবিধা

দেশের অন্যান্য মোবাইল ব্যাংকিং গুলোর তুলনায় নগদে মোবাইল ব্যাংকিং-এ রয়েছে একটু বেশিই সুবিধা। নগদ দিচ্ছে দেশের সর্বনিম্ন ক্যাশ আউট চার্জ হাজারে মাত্র ৯.৯৯ টাকা। অন্য মোবাইল ব্যাংকিং গুলোতে যেখানে সেন্ড মানি-তে নির্দিষ্ট পরিমাণ চার্জ দিতে হয় সেখানে নগদ দিচ্ছে ফ্রিতে সেন্ড মানি করার সুবিধা। এছাড়াও বিভিন্ন প্রকার বিল যেমনঃ বিদ্যুৎ বিল, পানি বিল, গ্যাস বিল, ইন্টারনেট বিল সহ সকল প্রকার বিল নগদে ফ্রি পে করতে পারবেন আনলিমিটেড। তাছাড়া রয়েছে ফ্রি এড মানি এবং রিচার্জ ক্যাশব্যাক অফার ইত্যাদি। 

নগদ একাউন্ট ব্যবহারে সুবিধা 

আপনি যদি একজন নগদ ব্যবহারকারী হন, তাহলে আপনি নগদ একাউন্ট ব্যবহারে বা নগদ থেকে পেমেন্টে নিমোক্ত সুবিধা গুলো নিতে পারবেন। 

  • নগদ একাউন্ট থেকে গ্রামীণফোন নাম্বারে রিচার্জে পাচ্ছেন আকর্ষণীয় ক্যাশব্যাক অফার। 
  • নগদের মাধ্যমে Jatri অ্যাপে পেমেন্ট করলে পাচ্ছেন ২০% ইন্সট্যান্ট ক্যাশব্যাক। 
  • Thief Guard অ্যাপে পাচ্ছেন ৩০% ক্যাশব্যাক 
  • এয়ারটেল নাম্বারে রিচার্জে পাচ্ছেন আনলিমিটেড ক্যাশব্যাক। 
  • North End Coffe Shop এ পাচ্ছেন ২৫% ডিসকাউন্ট
  • বাংলালিংক নাম্বারে রিচার্জে পাচ্ছেন আনলিমিটেড ক্যাশব্যাক। 
  • রবি নাম্বারে রিচার্জে পাচ্ছেন আনলিমিটেড ক্যাশব্যাক।
  • স্বাধীন মিউজিক অ্যাপে পেমেন্ট করলে পাচ্ছেন ৫০%ইনস্ট্যান্ট ক্যাশব্যাক!
  • Squre Hospital Ltd. এ পেমেন্ট করলে পাচ্ছেন ১০৯০ টাকা ডিসকাউন্ট। 
  • United Hospital এ পেমেন্ট করলে পাচ্ছেন ২,৩৫০ টাকা ডিসকাউন্ট। 
  • NovoAir ফ্লাইট টিকিট বুকিং করে নগদ এর মাধ্যমে পেমেন্ট করলে পাচ্ছেন ১০% ডিসকাউন্ট। 
  • গ্রামীণফোনে ৪২ টাকা রিচার্জ করলে পাচ্ছেন ১০ টাকা ক্যাশব্যাক। 
  • Biman Bangladesh Airlines এ পাচ্ছেন ২০% ডিসকাউন্ট। 
  • Walton এর পণ্য কিনে পেমেন্ট করলে পাচ্ছেন ১০% ডিসকাউন্ট।

বিঃদ্রঃ উপরোক্ত ক্যাশব্যাক এবং ডিসকাউন্ট অফার গুলো নগদের অফিশিয়াল ওয়েবসাইট থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে। ক্যাম্পেইন চলাকালীন অফার গুলো যেকোনো সময় চেঞ্জ হতে পারে। তাই আপনারা উপরোক্ত অফার গুলো নেওয়ার আগে নিজ দায়িত্বে এই লিংক থেকে অফার গুলো চেক করে নিবেন। 

নগদ একাউন্টের পিন ভুলে গেলে করণীয় 

নগদ একাউন্টের পিন ভুলে গেলে নগদ একাউন্টের পিন রিসেট করার প্রয়োজন হয়। নগদ একাউন্টের পিন রিসেট করার জন্য নিচের স্টেপগুলো ফলো করুন। 

  1. সর্বপ্রথম নগদ একাউন্ট কোড *167# ডায়াল করুন। 
  2. এরপর Pin Reset এর জন্য 8 প্রেস করে Send এ ক্লিক করুন। 
  3. পিন ভুলে গেলে 1 এবং পিন চেঞ্জ করতে চাইলে 2 লিখে Send বাটনে ক্লিক করুন। 
  4. এরপর আপনার নগদ একাউন্টটি যেই এনআইডি দিয়ে খোলা সেই এনআইডি কার্ডের নাম্বার এবং জন্মসাল দিন।
  5. একাউন্ট থেকে ৯০ দিনের মধ্যে কোনো লেনদেন করলে yes আর লেনদেন না করলে no দিবেন।
  6. যদি লেনদেন করে থাকেন তাহলে কিধরনের লেনদেন করেছেন এবং লাস্ট ১০ দিনের যেকোনো একটি লেনদেনের পরিমাণ লিখুন।
  7. সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আপনার নাম্বারে একটি কনফার্মেশন ম্যাসেজ পাবেন। 
  8. এরপর *167# ডায়াল করে আপনার পিন রিসেট করে নিবেন। 

যদি পিন রিসেট করার উপরের প্রক্রিয়াটি আপনার কাছ্র কঠিন মনে হয় তাহলে আপনি সরাসরি নগদ কাস্টমার কেয়ারের সাথে যোগাযোগ করে পিন রিসেট করতে পারবেন। নিচে প্রক্রিয়াটি দেওয়া হলো-

  • নগদ একাউন্টের পিন ভুলে গেলে এবং নগদ একাউন্টের পিন রিসেট করার জন্য প্রথমে নগদ হেল্পলাইন নাম্বার 16167 এ কল দিবেন। 
  • কলটি নগদের প্রতিনিধিরা রিসিভ করলে তাদের বলবেন আমি আমার নগদ একাউন্টের পিন ভুলে গেছি। 
  • এরপর তারা আপনার কাছে কিছু তথ্য জানতে চাইবে। অর্থাৎ আপনি যেই এনআইডি কার্ড দিয়ে নগদ একাউন্ট খুলেছিলেন, সেই এনআইডি কার্ডের তথ্য। যেমনঃ আপনার নাম, বাবার নাম, মায়ের নাম, ঠিকানা ইত্যাদি। আপনি তাদের জানতে চাওয়া সকল তথ্য সঠিকভাবে দিবেন। 
  • এরপর তারা আপনার পিন রিসেট করে দেওয়ার সকল দিকনির্দেশনা আপনাকে প্রদান করবে। 

নগদ একাউন্ট বন্ধ করার নিয়ম

নগদ একাউন্ট বন্ধ আপনি নিজে নিজেই করতে পারবেন না। নগদ একাউন্ট বন্ধ করার জন্য প্রথমে আপনাকে নগদ কাস্টমার কেয়ার নাম্বারে ফোন দিতে হবে। কলটি রিসিভ করলে তাদের বলবেন যে আপনি আপনার নগদ একাউন্ট বন্ধ করতে চান এবং কি কারণে বন্ধ করবেন সেটি উল্লেখ করবেন। এরপর উপরের মতো তারা আপনার কিছু তথ্য জানতে চাইবে। সকল তথ্য সঠিকভাবে দিবেন। সকল তথ্য সঠিকভাবে প্রদান করলে তারা আপনার নগদ একাউন্টটি বন্ধ করে দিবে। 

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং হেল্পলাইন নাম্বার

নগদ একাউন্ট সংক্রান্ত যেকোনো সমস্যার সমাধান, নগদ কাস্টমার কেয়ার হেল্পলাইন নাম্বারে কল করে নিতে পারবেন। এছাড়াও নগদ সম্পর্কিত যেকোনো তথ্যের জন্য যোগাযোগ করতে পারেন নগদ কাস্টমার কেয়ারের সাথে।

নগদ মোবাইল ব্যাংকিং হেল্পলাইন নাম্বারঃ 167167

নগদ ওয়েবসাইট nagad.com.bd

নগদ ইমেইল info@nagad.com.bd


তাহলে আশা করি পোস্টটি পড়ে নগদ একাউন্ট সম্পর্কে বিস্তারিত সবকিছু জানতে পারলেন। মুলত এই আর্টিকেলে আমরা নগদ একাউন্ট সম্পর্কিত সকল তথ্য আপনাদের জানানোর চেষ্টা করেছি। আশা করি আপনারা নগদ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পেরেছেন। এরপরেও যদি কোনো কিছু জানতে চান, তাহলে নিচের কমেন্ট বক্সে আমাদের কমেন্ট করে জানাবেন। 

Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url